কোহলির অধিনায়কত্ব ছাড়ায় পিছোনে অজানা এক নতুন কারণ খুঁজে বের করলেন পিটারসেন

প্রাক্তন ইংল্যান্ড অধিনায়ক কেভিন পিটারসেন বিশ্বাস করেন যে বিরাট কোহলির টেস্ট অধিনায়কত্ব থেকে সরে যাওয়ার সিদ্ধান্তের একটি কারণ হতে পারে বায়ো-বাবলের কঠোর জীবন এবং রোহিত শর্মার কাছে তিনটি ফর্ম্যাটের অধিনায়কত্ব হস্তান্তর করার পক্ষে।

দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে ভারতের ১-২ সিরিজ হারের পর টেস্ট অধিনায়কত্ব থেকে সরে এসে ক্রিকেট বিশ্বকে অবাক করে দিয়েছিলেন কোহলি। গত বছর বিশ্বকাপের পর তিনি টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়কত্ব থেকে সরে দাঁড়ান এবং পরে তাকে ওয়ানডে অধিনায়কের পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়। এদিকে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গেও তার সম্পর্ক টানাপোড়েন থেকে যায়।

পিটারসেন সাংবাদিকদের বলেন, “যারা আজকের খেলোয়াড়দের সমালোচনা করে, আমি মনে করি তারা বোকা কারণ বায়ো বাবলে খেলা খুব কঠিন। সমালোচনা করা অন্যায় হবে। বিরাট কোহলিকে দেখেননি। কোহলির দর্শক দরকার।

এমন পরিবেশে ভালো পারফর্ম করেন তিনি। আমার ব্যক্তিগত মতামত হল তার মতো একজন খেলোয়াড়ের পক্ষে এই বায়ো বাবলে তার ক্ষমতার সেরা পারফর্ম করা কঠিন।

কোহলি সমস্ত ফর্ম্যাটের অধিনায়কত্ব ছেড়ে দেওয়ায় পিটারসেন অবাক হননি। “অনেক খেলোয়াড় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এটি (বাজানো) বিশ্বের সেরা কাজ, কিন্তু আপনি যখন বায়ো বাবলে খেলেন, এটি অবশ্যই সেরা কাজ নয় কারণ এতে কোন আনন্দ নেই।

আমি সত্যিই অবাক নই যে বিরাট সেই অতিরিক্ত চাপ কিছুটা চান কারণ বায়ো বাবলে খেলা খুব কঠিন।” প্রাক্তন ইংল্যান্ড অধিনায়ক আরও বলেছিলেন যে রোহিত শর্মাকে তিনটি ফর্ম্যাটেই ভারতের নেতৃত্ব দেওয়া উচিত। রোহিতের চোটের কারণে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে চলতি ওয়ানডে সিরিজে অধিনায়কত্ব করছেন কেএল রাহুল।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *