জায়গা হয়নি ভারতীয় দলে, নতুন উপায়ে কামাচ্ছে কোটি কোটি টাকা পান্ডিয়া ভাতৃদ্বয়

ক্রুনাল হিমাংশু পাণ্ড্য একজন ভারতীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। তিনি একজন অলরাউন্ডার যিনি বামহাতে ব্যাট করেন এবং বাম হাতের ধীর গতির অর্থোডক্স বোল করেন।

তিনি ঘরোয়া ক্রিকেটে বরোদার হয়ে, এবং আইপিএলে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে খেলেন। নভেম্বরে ২০১৮ সালে তিনি ভারতীয় ক্রিকেট দলের হয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক করেছিলেন

হার্দিক হিমাংশু পান্ডিয়া হলেন একজন ভারতীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। তিনি ঘরোয়া ক্রিকেটে বরোদা ক্রিকেট দলের হয়ে এবং ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে মুম্বই ইন্ডিয়ানসের হয়ে ক্রিকেট খেলেন।

অল-রাউন্ডার হার্দিক ব্যাটিং করেন ডান হাতে এবং ডান হাতেই ফাস্ট মিডিয়াম বোলিং করেন। তিনি ক্রিকেটার ক্রুনাল পাণ্ড্য ছোটো ভাই।

ভারতীয় ক্রিকেট দলের তারকা অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়া এবং তার ভাই ক্রুনাল পান্ডিয়া খুব কম সময়ের মধ্যে তাদের কেরিয়ারে আকাশছোঁয়া সাফল্য পেয়েছেন।

হার্দিক পান্ডিয়া এবং তার ভাই ক্রুনাল পান্ডিয়া বর্তমানে ভারতীয় দলের বাইরে রয়েছেন। তবে তাই বলে তাদের ভাঁড়ারে টান পড়েনি।

কিছুদিন আগেই মুম্বাইয়ে ৩০ কোটি টাকার বিলাসবহুল ফ্ল্যাট কিনেছেন এই দুই ভাই। হার্দিক এবং তার ভাই ক্রুনাল পান্ডিয়ার এই ফ্ল্যাটে মোট ৮টি শয়নকক্ষ রয়েছে।

হার্দিক এবং ক্রুনাল নিজেদের বিলাসবহুল জীবনযাপনের জন্য ট্যাবলয়েড গুলিতে বহুল আলোচিত ব্যক্তিত্ব। বিশ্ব ক্রিকেটে এই দুই ভাই খুব অল্প সময়েই অনেক সম্পদ ও খ্যাতি অর্জন করেছেন। তারপরে দুই ভাই যে বিলাসবহুল বাড়িটি কিনেছেন তা ৩৮৩৮ বর্গফুট জায়গা জুড়ে নির্মিত।

সূত্র মারফত পাওয়া খবর অনুযায়ী, পান্ডিয়া ভাতৃদ্বয়ের এই ফ্ল্যাটটি মুম্বাইয়ের রুস্তমজি প্যারামাউন্টে অবস্থিত। বলিউড অভিনেতা টাইগার শ্রফ এবং দিশা পাটানিও এই সোসাইটি-তে থাকেন।

পান্ডিয়া ব্রাদার্সের অ্যাপার্টমেন্টে একটি জিম, গেমিং জোন এবং একটি ব্যক্তিগত সুইমিং পুলের সাথেসাথে একটি ব্যক্তিগত থিয়েটারও রয়েছে।

পান্ডিয়া ব্রাদার্সের এই অ্যাপার্টমেন্ট থেকে আরব সাগরের একটি খুব সুন্দর দৃশ্য দেখা যায়। হার্দিক এবং ক্রুনাল পান্ড্য একটি মধ্যবিত্ত পরিবারের অন্তর্ভুক্ত,

আগে তারা বরদায় একটি ছোট অ্যাপার্টমেন্টে থাকতেন। তাদের কঠোর পরিশ্রমই আজ তাদের গুজরাট থেকে মুম্বাইয়ের একটি বিলাসবহুল বাড়িতে নিয়ে গেছে।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *