তোলপাড় ক্রিকেটবিশ্ব, রাহুলের অধিনায়কত্ব নিয়ে প্রকাশ্যেই বোমা ফাটালেন কোহলি

দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে রওনা দেওয়ার আগে শেষবার সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত হয়েছিলেন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি। সব কিছু ঠিক থাকলে কেপটাউনেই নিজের শততম টেস্ট খেলতেন। তবে পিঠের মাসলে টান ধরায় জো’বার্গ টেস্ট থেকে ছিটকে যান।

সেই টেস্ট জিতে সিরিজে সমতা ফিরিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। আগামীকাল, কেপটাউনে শুরু হবে সিরিজের ভাগ্য নির্ধারক টেস্ট। তার আগে ভার্চুয়াল সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত হয়েছিলেন ভারতীয় টেস্ট অধিনায়ক।

ঋষভ পন্থ থেকে পূজারা – রাহানে, নানান বিষয়ে অকপট কোহলি। জেনে নিন কি বলেছেন ভারতীয় টেস্ট অধিনায়ক। নিজের ব্যাটিং ফর্ম প্রসঙ্গে : ” এটা প্রথমবার নয়, অতীতেও আমার ব্যাটিং ফর্ম, ভবিষ্যৎ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

দলের জন্যে পারফর্ম করতে পারলে গর্বিত হই। ওই কারণেই দীর্ঘদিন ধরে পারফর্ম করে যেতে পারছি। শেষ কয়েক বছরে দলের গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্তগুলির অংশ ছিলাম। আমার মনে হয়না, কারোর কাছে নতুন করে কিছু প্রমাণ করবার দরকার রয়েছে।

“ ভারতীয় বোলিং আক্রমণ প্রসঙ্গে: ” যখন আমি অধিনায়কের দায়িত্ব গ্রহণ করি ভারত টেস্ট র‍্যাঙ্কিংয়ের সপ্তম স্থানে ছিল। এখন ওই সময়টার সাথে নিজেদের মেলাতেই পারিনা।

আমরা দীর্ঘদিন ধরে টেস্ট ক্রিকেটে শীর্ষস্থান ধরে রেখেছি। আর এই যাত্রাপথে বোলারদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। আজ আমাদের কাছে এতোজন ফাস্ট বোলার রয়েছে যে কাকে খেলাব আর কাকে খেলাব না তা নিয়েই সংশয়ে পড়ে যাই।

আমি ভীষণ খুশি এই পরিস্থিতিটা নিয়ে। “ কেপটাউন টেস্ট ও প্রথম একাদশ: ” আমি সম্পূর্ণ ফিট। সিরাজ এখনও রিকভারি প্রক্রিয়ার মধ্যে রয়েছে। আমার মনে হয়না সিরাজ ম্যাচ ফিট।

আর ১১০% ফিট নয় এমন পেসার খেলানোর ঝুঁকি নেওয়াটা ঠিক হবে না। তৃতীয় টেস্টে সিরাজের বিকল্প কে হতে চলেছে তা এই মুহূর্তে ঠিক করা হয়নি। কোচ ও সহ-অধিনায়কের সঙ্গে আলোচনা করব।

তবে আমাদের কাছে অনেকগুলি বিকল্প রয়েছে। জাদেজা চোট পেয়ে ছিটকে গেলেও চলতি সিরিজে অশ্বিন কিন্তু দুর্দান্ত পারফর্ম করেছে। আশা করব ও এই পারফর্মেন্স ধরে রাখবে। “

রাহানে-পূজারা প্রসঙ্গে: ” দলে কখন রুপান্তর প্রক্রিয়া শুরু হবে তা আমিও নির্দিষ্ট ভাবে বলতে পারিনা। শেষ টেস্টে রাহানে – পূজারা দুর্দান্ত ব্যাট করেছে! ওই অভিজ্ঞতাটা আমাদের কাছে ভীষণই গুরুত্বপূর্ণ।

আমার মনে হয় দলে পরিবর্তন আসে, কিন্তু সেটা স্বাভাবিক ভাবেই হয়। জোর করে রুপান্তর ঘটানো যায় না। “ অধিনায়ক রাহুলের প্রশংসা: ” আমার মনে হয়েছে রাহুলের অধিনায়কত্ব, ওর ট্যাকটিক্সগুলিতে যথেষ্ট ভারসাম্য রয়েছে। “

ঋষভ পন্থ প্রসঙ্গে: ” মহেন্দ্র সিং ধোনি আমাকে একটা মূল্যবান কথা বলেছিল – কোনও ভুল দ্বিতীয়বার করবার মধ্যে অন্ততপক্ষে ৭-৮ মাসের অন্তর থাকা উচিৎ। কেবলমাত্র তখনই তোমার কেরিয়ার দীর্ঘ হবে।

ওই পরামর্শটা আমার সঙ্গে সদাসর্বদা রয়ে গিয়েছে। আমরা সবাই গুরুত্বপূর্ণ সময়ে ভুল করেছি। তবে হ্যাঁ, অনুশীলনে আমরা ঋষভের সঙ্গে কথা বলেছি। “ নিজের চোট প্রসঙ্গে: ” যখনই একটা টেস্ট থেকে ছিটকে যাবেন, নিজেকে অপরাধী মনে হবে।

ভাববেন কীভাবে চোট পেলাম আমি। দীর্ঘদিন ক্রিকেট খেললে এটা হতেই পারে। অনেকসময় ধরে নেওয়া হয় এই ক্রিকেটার প্রতিটি ম্যাচ খেলবেন। এইধরণের অকস্মাৎ চোট নিজেকে মানুষ হিসাবে ভাবতে, ট্রিট করতে সাহায্য করে। “

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *