নিজের দেশকে জেতাতে তাঁরা ছবি পাল্টে দিতে পারেন?দেখুন সেটা কী আসলেও সম্ভব

কেপটাউনে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচ জিতে টেস্ট সিরিজ নিজেদের করে নিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। কেপটাউন টেস্টে দুই দলের হাড্ডাহাড্ডি লড়াই দেখেছে ক্রিকেটবিশ্ব, তবে শেষপর্যন্ত ম্যাচ জিতে নিয়ে শেষ হাসিটা হেসেছে দক্ষিণ আফ্রিকাই।

ভারতীয় দলের অভিযোগ সম্প্রচারকারী সংস্থা ছবি বদলে তাদের বিরুদ্ধে কাজ করেছে। স্বাভাবিক ভাবে যে দেশে খেলা হচ্ছে সেই দেশের সম্প্রচারকারী সংস্থায় সেই দেশের মানুষ কাজ করেন। নিজের দেশকে জেতাতে তাঁরা ছবি পাল্টে দিতে পারেন? সেটা কী সম্ভব?

এক সম্প্রচারকারী সংস্থার প্রধান হেমন্ত বাক বলেন, “যারা কাজ করছেন প্রত্যেকে দক্ষ। খুব দ্রুত কাজটা করতে হয়। প্রত্যেকের দক্ষতাও আলাদা। তাই কিছু সময় ভুল হয়ে যেতেই পারে। একজন মানুষ যখন কাজটা করছে, তখন ভুল হতেই পারে। কিন্তু মনে রাখতে হবে যে ইচ্ছাকৃত ভাবে কিছু করতে গেলে ধরা পড়বেই।”

ডিন এলগারের রিভিউ নিয়ে তৃতীয় টেস্টে বিতর্ক তৈরি হয়। সেই সময় স্টাম্প মাইকের কাছে গিয়ে কথা বলতে দেখা যায় বিরাট কোহলীদের। ভারত অধিনায়ক বলেন, “দারুণ ডিআরএস, খুব ভাল খেললে।” লোকেশ রাহুল বলেন, “গোটা দেশ খেলছে ১১ জনের বিরুদ্ধে।”

কোহলীকে ফের বলতে শোনা যায়, “শুধু বিপক্ষ নয়, নিজের দলের দিকেও দেখো, সব সময় লোককে ধরতে চাইছে।” একদিকের স্টাম্পে যখন এই ধরনের কথা উঠে আসছে, সেই সময় উল্টো দিকের উইকেটে কথা বলতে শোনা যায় অশ্বিনকে।

তাঁর অভিযোগের তির দক্ষিণ আফ্রিকার সম্প্রচারকারী সংস্থার (সুপারস্পোর্ট) বিরুদ্ধে। তিনি বলেন, “অন্য ভাবে জেতার পথ খোঁজা উচিত সুপারস্পোর্টের।” মাঠের আম্পায়ার ইরাসমাসও অবাক হন। তিনি বলেন, “এটা অস্বাভাবিক।”

ম্যাচ শেষে এই বিষয়টাকে খুব বেশি এগিয়ে নিয়ে যেতে চাননি কোহলী। ভারতীয় ক্রিকেটারদের আরও একটি বিষয় নিয়ে বিরক্তি কাজ করছে। স্টাম্প মাইকের আওয়াজ গ্রহণ করার শক্তি বাড়িয়ে রাখা হয়েছে বলে তাঁদের মত। সেই কারণেই সব কথা ধরা পড়ে যাচ্ছে। তবে সেটা সঠিক কি না তা স্পষ্ট করে বলতে পারেননি বাক।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *