রোহিত, রাহুল কিংবা বুমরাহ নয় এই ক্রিকেটারকে টেস্ট অধিনায়কের দায়িত্ব দিতে যাচ্ছে বিসিসিআই

গত কয়েকদিন আগে বিরাট কোহলি টিম ইন্ডিয়ার টেস্ট অধিনায়কত্ব থেকে নিজের নাম সরিয়ে নিয়েছেন। আর এর সাথে সাথেই শুরু হয়েছে আগামী টেস্ট অধিনায়ক খোঁজার প্রক্রিয়া, তবে ভারতের ক্রিকেট বোর্ড এখনও নিজের মতামত প্রকাশ করেনি।

কিন্তু প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটাররা নিজেদের মতামত প্রকাশ করেছেন এবং বেশিরভাগ ক্রিকেটার তরুণ উইকেট কিপার ব্যাটসম্যান ঋষভ পন্থকে আগামী টেস্ট অধিনায়ক হিসেবে দেখছেন।

যদি আমরা ঋষভ পন্থের টেস্ট ক্যারিয়ারের কথা বলি তবে তিনি গাবা টেস্ট ম্যাচ নিজের দমে জিতিয়েছেন। তবে সেই ম্যাচে শুভমান গিল ও পূজারার ভুমিকা ভুলানোর মতো নয়। আজ আমরা যে বিষয় নিয়ে আলোচনা করবো, তা হলো কে কি বললেন ঋষভ পন্থের টেস্ট অধিনায়কত্ব নিয়ে।

সুনীল গাভাস্কার বলেছেন, ” আপনি যদি আমাকে জিজ্ঞাসা করেন, আমি এখনও ঋষভ পন্তকে ভারতের পরবর্তী অধিনায়ক হিসাবে দেখবো। শুধুমাত্র একটি কারণে, যেমন রিকি পন্টিং পদত্যাগ করার সময় রোহিত শর্মাকে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের অধিনায়কত্ব দেওয়া হয়েছিল,

তার পরে তার ব্যাটিংয়ে পরিবর্তন দেখুন। হঠাৎ অধিনায়ক হওয়ার দায়িত্ব তাকে ৩০, ৪০ এবং ৫০ এর সেই সুন্দর ক্যামিওগুলিকে শত, ১৫০ এবং ২০০-এ রূপান্তরিত করে।”

“তিনি (ঋষভ) আইপিএলের কয়েকটি গেমে দেখিয়েছেন যে তিনি শেখার জন্য যথেষ্ট চতুর এবং তার স্বাভাবিক স্ট্রিট-স্মার্ট সচেতনতার অর্থ হল তিনি বেশিরভাগ পরিস্থিতিতেই ছিলেন এবং

আঠালো পরিস্থিতি থেকে বেরিয়ে আসার জন্য নিজের পদ্ধতি খুঁজে বের করছেন। তিনি ভবিষ্যতের জন্য একজন, এতে কোন সন্দেহ নেই,” গত বছরের মে মাসে গাভাস্কার মন্তব্য করেছিলেন।

অন্যদিকে প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার সুরেশ রায়নাও সুনীল গাভাস্কারকে সমর্থন করেছেন এবং বলছেন, ” এটা একটা ভালো ধারণা, ঋষভ ভালো অধিনায়ক হতে পারে এবং আমি সনি ভাইয়ের সাথে একমত ।”

যুবরাজ সিংও অধিনায়কত্বের ব্যাপারে এই তরুণ খেলোয়াড়ের নাম দিয়েছেন। তিনি টুইট করেছেন এবং গাভাস্কারের এই পরামর্শে সম্মত হয়েছেন। টুইটে তিনি লিখেছেন, “এটাই টিক সিদ্ধান্ত। স্টাম্পের পিছনে থেকে (ঋষভ পন্থ) খেলাটি ভালভাবে বোঝেন।”

আকাশ চোপড়া বলেছেন, “আমরা কি ঋষভ পন্থকে অধিনায়ক করতে পারি? সানি ভাইও তাকে টেস্ট অধিনায়ক করার কথা বলেছেন। খারাপ পছন্দ নয় কিন্তু ঋষভ পন্থ, তিনি তরুণ এবং টেস্ট দলে তার একটি নির্দিষ্ট জায়গা আছে কিন্তু তিনি কি আপনার নেতা?

তার অধিনায়কত্বের ক্ষমতা এখনও পরীক্ষা করা বাকি। আমার ভোট আপাতত রোহিত শর্মার জন্য। অন্যজন কেএল রাহুল –আপনি তার সাথে যেতে পারেন। ঋষভ পন্থ তৃতীয়, এটা একটু বাইরের সিলেকশন, আপনি সেটাও দেখতে পারেন।”

ঋষভ পান্থ ২০১৮ সালের ১৮ই আগস্ট ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্টে অভিষেক করেন। অভিষেক ম্যাচের প্রথম ইনিংসে ২৪ রান এবং দ্বিতীয় ইনিংসে ১ রান করেছিলেন। এখনো পর্যন্ত ঋষভ পন্থ মোট ২৮ টি ম্যাচ খেলে ৬৭.৪৮ এর গড়ে ১৭৩৫ রান করেছেন।

তাঁর নামে ৪টি টেস্ট সেঞ্চুরি ও ৭টি ৫০ স্কোরের রেকর্ড রয়েছে । তিনি তাঁর এখনও পর্যন্ত খেলা টেস্ট ম্যাচে ১৮২ টি চার এবং ৩৮টি ছক্কা মেরেছেন। তিনি ৪টি ম্যাচে নোট-আউট থেকেছেন, তার মধ্যে অন্যতম হলো গাবার টেস্ট ম্যাচ।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *