সবাইকে চমকে দিয়ে ভাইস ক্যাপ্টেন বুমরা, জন্ম দিল নতুন বিতর্কের

রোহিত খেলছেন না ওডিআই-য়ে। তাই একদিনের সিরিজে ক্যাপ্টেন হয়েছেন কেএল রাহুল। ভাইস ক্যাপ্টেন ঋষভ পন্থ। শুক্রবার দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ওয়ানডে সিরিজের জন্য ১৮ জনের স্কোয়াড ঘোষণা করেছেন নির্বাচকরা।

সম্পূর্ণ বদলে যাওয়া স্কোয়াড বাছাইয়ের পরে আলোচনার কেন্দ্রে ফের ক্যাপ্টেনশিপ। একদিনের ম্যাচে দায়িত্ব পাওয়ার পরে রোহিত শর্মা প্রোটিয়াজ সফরেই খেলতে পারবেন না। হ্যামস্ট্রিংয়ে চোট।

তাই আপাতত অধিনায়ক বেছে নেওয়া হয়েছে কেএল রাহুলকে। তবে সকলকে চমকে দিয়ে অধিনায়কত্বে আগে কোনও অভিজ্ঞতাই না থাকা জসপ্রীত বুমরাকে ভাইস ক্যাপ্টেন ঘোষণা করেছেন চেতন শর্মারা।

নির্বাচক কমিটির চেয়ারম্যান চেতন শর্মা রাহুল-বুমরাকে দায়িত্বে আনার পরে সাফ জানিয়েছেন ভবিষ্যতের কথা ভেবেই এমন সিদ্ধান্ত। তবে নির্বাচক কমিটির সঙ্গে একমত হতে পারছেন না প্রাক্তন জাতীয় নির্বাচক সাবা করিম।

তিনি বলছেন, সহ অধিনায়ক হিসেবে ঋষভ পন্থকেই বাছা উচিত ছিল। ইন্ডিয়া নিউজ-কে সাবা করিম জানিয়েছেন, “আশাই করিনি জসপ্রীত বুমরাকে ভাইস ক্যাপ্টেন করা হবে।

পুরোপুরি হতবাক হয়ে গিয়েছি, এমন সিদ্ধান্তে। ভেবেছিলাম ঋষভ পন্থকেই সহ অধিনায়ক করা হবে। কারণ ও মাল্টি ফরম্যাট প্লেয়ার। তিনটে ফরম্যাটেই ও খেলে।” তাছাড়া সাবা করিম বলছেন, ঋষভ পন্থের আইপিএলে দিল্লি ক্যাপিটালসকে নেতৃত্ব দেওয়ার অভিজ্ঞতাও রয়েছে।

“দিল্লি ক্যাপিটালসকে দারুণভাবে নেতৃত্ব দিচ্ছে পন্থ। কীভাবে ও ম্যাচ রিডিং করতে পারে, সেটাই সবাই দেখেছি। তাছাড়া ওঁর ম্যাচের এওয়ারনেস-ও নজর কাড়ার মত।”

“জসপ্রীত বুমরা দারুণ প্রতিভা। জাতীয় দলে ওঁর ভূমিকাও ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ। তবে বুমরা আগে কখনও নেতৃত্ব দেয়নি। তাই এই সিদ্ধান্ত অবাক করার মত। ঋষভ পন্থ সবসময় সহ অধিনায়ক হওয়ার দৌড়ে ছিল।” জানিয়েছেন সাবা করিম।

তবে সাবা করিমের সঙ্গে একমত হতে পারেননি প্রাক্তন ভারতীয় অলরাউন্ডার রিতীন্দর সিং সোধি। তিনি বরং প্যাট কামিন্সের উদাহরণ টেনে বলছেন, বুমরার নিয়োগ দারুণ সিদ্ধান্ত।

“ফাস্ট বোলাররা ক্যাপ্টেন হতে পারে না- এটা একটা বড়সড় মিথ। কারণ ফাস্ট বোলাররাই ম্যাচ সবথেকে ভাল রিড করতে পারে। তাছাড়া জসপ্রীত বুমরা সমস্ত ফরম্যাটেই পারফর্ম করে। বুমরা একদম ক্যাপ্টেনশিপ মেটেরিয়াল।”

“এই ব্যাপারে অস্ট্রেলিয়ার উদাহরণ আমাদের সামনেই রয়েছে। প্যাট কামিন্সকে নেতা বাছার পরে ব্যাপক সমালোচনা হয়েছিল। তবে এখন অস্ট্রেলিয়া অ্যাসেজ ৩-০ এগিয়ে। আর প্যাট কামিন্সও দারুণভাবে পারফর্ম করে চলেছে।

জসপ্রীত বুমরাকে ভাইস ক্যাপ্টেন করার বড় ইঙ্গিত যে ভবিষ্যতে ও জাতীয় দলের নেতা হতে পারে।” বলেছেন সোধি।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *